আবারো শুরু হয়েছে দেশব্যাপী বিনামূল্যে ফ্রিল্যান্সিং কোর্স প্রশিক্ষণ, মাত্র ৫৪০ টাকা রেজিস্ট্রেশনের মাধ্যমে ১৬টি কোর্সের যেকোনটিতে অংশ নেওয়ার সুযোগ। বিস্তারিত: Pro-offer আমাদের প্রথম দিকের নাম্বারগুলোর বিকাশ লিমিট শেষ, তাই টাকা পাঠানোর ক্ষেত্রে শেষের নাম্বারগুলোতে পাঠাবেন। কিভাবে লাইভ ক্লাসে জয়েন করবেন, দেখুন এখানে

এইচএসসি ডাচ-বাংলা ব্যাংক শিক্ষাবৃত্তি ২০১৮

যাদের জন্য এই শিক্ষাবৃত্তিঃ

২০১৮ সালের এইচএসসি ও সমমান পাস মেধাবী ও অস্বচ্ছল শিক্ষার্থীদের শিক্ষাবৃত্তি প্রদান করবে ডাচ্‌ বাংলা ব্যাংক। উচ্চ মাধ্যমিক পড়াশোনার জন্য আগামী তিন থেকে পাঁচ বছরের মেয়াদে এ বৃত্তি প্রদান করা হবে। এ বৃত্তিতে আবেদনের জন্য সিটি কর্পোরেশন ও জেলা শহরের শিক্ষা প্রতিষ্ঠান থেকে পাসকৃত শিক্ষার্থীদের জিপিএ ৪.৮০ (জিপিএ ৫.০০ এর মধ্যে) এবং প্রত্যন্ত অঞ্চলের শিক্ষা প্রতিষ্ঠান থেকে পাসকৃত শিক্ষার্থীদের জিপিএ ৫.০০ এর মধ্যে ৪.৫০ (৪র্থ বিষয় ব্যাতিরেক) থাকতে হবে। শিক্ষার্থীদের আগামী ৩-৫ বছরের জন্য প্রতিমাসে ২৫০০ টাকা, পড়ার উপকরণের জন্য বার্ষিক ৫,০০০ টাকা এবং কাপড় বাবদ বার্ষিক ১০০০ টাকা দেয়া হবে।

আবেদন শুরুঃ ২২ জুলাই ২০১৮
আবেদনের শেষ সময়ঃ ১৫ সেপ্টেম্বর, ২০১৮;
প্রাথমিকভাবে বাছাইকৃত প্রার্থীদের তালিকা প্রকাশঃ ২০ সেপ্টেম্বর ২০১৮
প্রাথমিকভাবে বাছাইকৃত প্রার্থীদেরকে DBBL ওয়েবসাইট থেকে “Primary Selection Letter” এবং প্রদত্ত নির্দেশিকার প্রিন্টকপিসহ সকল কাগজ পত্রের সত্যতা যাচাইয়ের জন্য ডাচ-বাংলা ব্যাংকের যেকোনো শাখা/মোবাইল ব্যাংকিং অফিসে উপস্থিত হওয়ার তারিখঃ ২৩ সেপ্টেম্বর থেকে ৮ অক্টোবর ২০১৮

 

বৃত্তির অন্যান্য নীতিমালাঃ

  • মোট বৃত্তির শতকরা ৫০ ভাগ ছাত্রীদের প্রদান করা হবে।
  • সরাসরি/ডাকযোগে/কুরিয়ার যোগে কোনো আবেদনপত্র গ্রহণ করা হবেনা।
  • গ্রামীন/অনগ্রসর এলাকা থেকে উত্তীর্ণ ছাত্র-ছাত্রীদের জন্য বৃত্তির শতকরা ৯০ ভাগ নির্ধারিত থাকবে।
  • যেসকল ছাত্র/ছাত্রী সরকারি বৃত্তি ব্যতীত অন্যকোনো উৎস থেকে বৃত্তি পাচ্ছেন, তারা ডাচ-বাংলা ব্যাংকের বৃত্তির জন্য অযোগ্য বলে বিবেচিত হবেন।
  • যেসকল ছাত্র/ছাত্রী বৃত্তির জন্য চূড়ান্তভাবে মনোনীত হবে বৃত্তির অর্থ গ্রহণের পূর্বে তাদেরকে অবশ্যই কোনো পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয়ে/কলেজে স্নাতক পর্যায়ে ভর্তি হতে হবে।

নতুন আবেদনকারীদের জন্য প্রয়োজনীয় কাগজপত্রঃ

  • আবেদনকারীর সদ্য তোলা পাসপোর্ট সাইজের রঙিন ছবির স্ক্যান কপি।
  • আবেদনকারীর পিতা ও মাতার পাসপোর্ট সাইজের রঙিন ছবির স্ক্যান কপি।
  • এস.এস.সি/সমমান পরীক্ষার নম্বরপত্রের স্কেন কপি।
  • এইচ.এস.সি/সমমান পরীক্ষার নম্বরপত্রের ও প্রসংশা পত্রের স্ক্যান কপি।

 

এস.এস.সি পর্যায়ে ডিবিবিএল বৃত্তিপ্রাপ্তদের জন্য প্রয়োজনীয় কাগজপত্রঃ

  • এইচ.এস.সি/সমমান পরীক্ষার নম্বরপত্রের স্ক্যান কপি।
  • এইচ.এস.সি/সমমান পর্যায়ে প্রসংশা পত্রের স্ক্যান কপি।

 

২০১৮ সালে এইচ.এস.সি ও সমমান পরীক্ষায় উত্তীর্ণ উপরোক্ত যোগ্যতা সম্পন্ন আগ্রহী প্রার্থীরা DBBL এর ওয়েবসাইট থেকে আবেদন করতে ক্লিক করুনঃ ডাচ-বাংলা ব্যাংক এইচএসসি শিক্ষাবৃত্তি ২০১৮

***চূড়ান্ত পর্যায়ে মনোনীত প্রার্থীদের তালিকা পরবর্তীতে ডিবিবিএল ওয়েবসাইট ও পত্রিকার মাধ্যমে জানানো হবে।

 

আরো পড়ুন:

  1. ডাচবাংলা ব্যাংকের উপবৃত্তি প্রদানে ব্যর্থতা

   
   
July 24, 2018 | 3 months আগে

0 responses on "এইচএসসি ডাচ-বাংলা ব্যাংক শিক্ষাবৃত্তি ২০১৮"

Leave a Message

Your email address will not be published.